• মে ১৯, ২০২২
  • Last Update মে ১০, ২০২২ ১:১৮ অপরাহ্ণ
  • বাংলাদেশ

সামরিক তত্ত্বাবধানে সরকারের প্রতি তিন বছরের খাদ্য, বস্ত্র ও ঔষধ মজুদের আহবান জানিয়েছেন। _ জাকের পার্টির চেয়ারম্যান

সামরিক তত্ত্বাবধানে সরকারের প্রতি তিন বছরের খাদ্য, বস্ত্র ও ঔষধ মজুদের আহবান জানিয়েছেন। _ জাকের পার্টির চেয়ারম্যান

জাকের পার্টি চেয়ারম্যান মোস্তফা আমীর ফয়সল দেশবাসীকে জাকের পার্টির পতাকা তলে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, সামনে বিপর্যয়কর মুহূর্তের ঘনঘটা। যে ধরনের ঝড় বয়ে যাবে, তা থেকে রক্ষা করতে হবে সকলকে। দেশবসসীকে ঐক্যবদ্ধ করতে হবে। এ সরকারের বিকল্প হচ্ছে জাকের পার্টি।

শুক্রবার রাতে পাকুরিয়ায় শেরপুর জাকের মঞ্জিলে পবিত্র শবে বরাতের রজনীতে ইসলামী মহা সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

সম্মেলনে উপস্থিত জাকের পার্টির লাখো নেতা কর্মীর “ফয়সল ভাই, ফয়সল ভাই”, “জাকের পার্টি, জাকের পার্টি” গগনবিদারী তাকবীর ধ্বনিতে মুখরিত হয় ইসলামী মহা সন্মেলন। এসময় ব্যতিক্রমী দৃশ্যের অবতারণা হয়।
সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জাকের পার্টি ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব শামীম হায়দার প্রমুখ।

মোস্তফা আমীর ফয়সল বিরাজমান যুদ্ধ পরিস্থিতি আলোকপাত কালে বলেন, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি নিয়ে অনেক কথা হচ্ছে। কী দেখেছেন দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি? সামনে আসছে এক ভায়াল দিন। শুধু বাংলাদেশ নয় বিশ্বব্যাপী দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি হবে।

জাকের পার্টির চেয়ারম্যান বলেন, তাই সরকারের প্রতি আহ্বান জানাবো, বিশ্বযুদ্ধের কারণে বিশ্ব জুড়েই প্রভাব পড়বে। দ্রব্যমূল্যের বৃদ্ধি এমন পর্যায়ে যাবে, যে তখন বিশ্ব বাজার থেকে কিনে এনে জনগণকে খাওয়ানো যাবে না। সরকারের প্রতি অনুরোধ আপনারা তিন বছরের জন্য দেশে খাদ্য মজুদ করেন। তিন বছরের বস্ত্র এবং ওষুধ মওজুদ করেন। আর তা হতে হবে সেনাবাহিনীর অধীনে।

মোস্তফা আমীর ফয়সল বলেন, একটি দল ব্যক্তিস্বার্থ, দলীয় স্বার্থ চরিতার্থ করতে দিয়ে জাতিকে খণ্ড-বিখণ্ড করেছে। জাকের পার্টির উপর ধাক্কা দিয়েছে। অপমান ও লাঞ্ছিত করেছে। আজ তাদের বিচার হয়েছে। সরল অন্তপ্রাণ জনগণকে আহ্বান জানাবো আর এদের পিছনে ঘুরবেন না। আপনারা জাকের পার্টির পতাকা তলে আসেন। না আসলে স্বপ্ন পূরণ হবে না।
জাকের পার্টি চেয়ারম্যান বলেন,কিছু দল আছে বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম লেখে। আবার লেখে জনগণই সকল ক্ষমতার উৎস। এ তো আল্লাহর সাথে শিরক করা। তাহলে তারা কেমন কেমন ইসলামী অনুসারী দল।দেশবাসী আপনারা তো ভালো করেই জানেন। আরেকটি দল আছে এই দলের এ সব কর্মকাণ্ড চুপ থেকে সমর্থন করে। তাদের ব্যাপারেও আপনারা সতর্ক হোন। আর এদের পিছনে ঘুরবেন না।

জাকের পার্টি চেয়ারম্যান বলেন, নির্বাচন কমিশন আইন কে সাধুবাদ জানাই। নির্বাচন কমিশন গঠন সাধুবাদ জানাই। যদি পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকে, তাহলে জাকের পার্টি নির্বাচন করবে। তবে এক্ষেত্রে জাকের পার্টি ব্লক চেইন পদ্ধতি এবং ই-ভোটিংয়ের দাবি জানাচ্ছে। বাংলাদেশের জন্য এটা কঠিন কিছু নয়। ব্লকচেইন টেকনোলজি এবং ই-ভোটিং প্রয়োগে ব্যর্থ হলে ব্যালটবাক্স ছিনতা, হানাহানি, রাহাজানি, রক্তপাত চলতে থাকবে। তাই অনতিবিলম্বে ব্লকচেইন টেকনোলজি এবং ই-ভোটিংয়ের দাবি জানাচ্ছি।

মোস্তফা আমীর ফয়সল বলেন, নেতা একজনই হয়। দু’জন হয় না।

জাকের পার্টি চেয়ারম্যান সতর্কবাণী উচ্চারণ করে বলেন, বাংলাদেশ নিয়ে চক্রান্ত চলছে। উপমহাদেশ এর উপর বিপদ। ধীরে ধীরে তা আসছে। পর্দার আড়ালে উপমহাদেশ নিয়ে ভয়াবহ ষড়যন্ত্র। বাংলাদেশ আক্রমণের চক্রান্ত চলছে। আমার কথাগুলো এক বছর পরেই দেখতে পাবেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.