• অক্টোবর ২, ২০২২
  • Last Update অক্টোবর ১, ২০২২ ৭:১০ অপরাহ্ণ
  • বাংলাদেশ

উজিরপুর-বানারীপাড়া সন্ধ্যা নদীর ভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম

উজিরপুর-বানারীপাড়া সন্ধ্যা নদীর ভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম

উজিরপুর-বানারীপাড়া সন্ধ্যা নদীর ভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন
পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম

উজিরপুর-বানারীপাড়া সন্ধ্যা নদীর ভাঙ্গন কবলিত স্থান পরিদর্শন করেন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম। ৪ ডিসেম্বর শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় সন্ধ্যা নদীর সাতলা-রাজাপুর নদী ভাঙ্গন কবলিত এলাকা পরিদর্শনে গিয়ে প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক শামীম বলেন, বানারীপাড়া, উজিরপুর, সাতলা-বাগধা বেড়ীবাধ উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় রাজাপুর ভাঙ্গন কবলিত এলাকাসহ সন্ধ্যা নদীর ৫ কিলোমিটার এলাকা ভাঙ্গন রোধকল্পে অতি দ্রæত প্রতিরোধ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। এ সময় তিনি আরো বলেন, বেড়িবাধসহ পাকা সড়ক বিধ্বস্ত হওয়ায় অতি দ্রæত পানি উন্নয়ন বোর্ডের মাধ্যমে তাৎক্ষণিক ২০ লক্ষ টাকার বরাদ্দ ঘোষনা করেন তিনি।

ইতিমধ্যে ভাঙ্গন কবলিত স্থানে বালিভর্তি জিও ব্যাগ ফেলার ব্যবস্থা করা হয়েছে। পরিদর্শনকালে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল-২ আসনের সংসদ সদস্য মোঃ শাহে আলম, পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক মোঃ হাবিুবর রহমান, বরিশাল পানি উন্নয়ন বোর্ডের তত্ত¡াবধায়ক প্রকৌশলী মোঃ শফি উদ্দিন, নির্বাহী প্রকৌশলী দীপক রঞ্জন দাস, বানারীপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম ফারুক, উজিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রণতি বিশ্বাস, মডেল থানা অফিসার ইনচার্জ জিয়াউল আহসান, বানারীপাড়া অফিসার ইনচার্জ মোঃ হেলাল উদ্দিন, সাতলা ইউপি চেয়ারম্যান খায়রুল বাশার লিটন, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবিদ আল হাসান, আওয়ামীলীগ নেতা শাহিন হাওলাদারসহ বিভিন্ন স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

এ সময় সন্ধ্যা নদীর উজিরপুর চথলবাড়ি এলাকাসহ ২টি স্থানের বালির চর কেটে পানির ¯্রােতধারা পরিবর্তন করে ভাঙ্গন রোধের প্রকল্প প্রনয়নের উদ্যোগ গ্রহন করেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.